অনলাইন চাকরির পরীক্ষা ২০২১

নিচের লেখাগুলো সম্পূর্ণ পড়ার অনুরোধ রইলো। অনলাইন চাকরির পরীক্ষায় আপনাকে স্বাগতম।বর্তমানে চাকরি পাওয়াটা যতটা না কষ্টকর ততোটাই দুঃস্বাধ্য বিষয়।আপনার চাকরি পাওয়াটা আরেকটু সহজ করতে আমরা চালু করেছি অনলাইন চাকরি পরীক্ষা।যার ধরুন আপনি আপনার সক্ষমতা বাড়িয়ে নিতে পারবেন দ্বিগুন।বিসিএস,সহকারী শিক্ষক,ব্যাংক,মন্ত্রণালয় ইত্যাদির একসাথে গঠিত প্রশ্নের সমন্বয়ে পরীক্ষা নেওয়া হবে প্রতিদিন। যেকেউ এই পরীক্ষায় অংশগ্রহন করতে পারবে।

প্রশ্নঃ- কখন থেকে পরীক্ষা নেওয়া শুরু হবে?

উত্তরঃ- আগামী ১/১২/২০২১ ইং থেকে কুইজ পরীক্ষার মধ্য দিয়ে শুরু হবে অনলাইন চাকরির পরীক্ষা।

প্রশ্নঃ- কি কি বিষয়ে পরীক্ষা নেওয়া হবে?

উত্তরঃ- বিসিএস,সহকারী শিক্ষক,ব্যাংক,মন্ত্রণালয় ইত্যাদির একসাথে গঠিত প্রশ্নের সমন্বয়ে পরীক্ষা নেওয়া হবে।

প্রশ্নঃ- পরীক্ষা নেওয়ার ধাপগুলো কি কি?

উত্তরঃ- আমরা তিনটি পদ্ধতিতে পরীক্ষা নিব।

১। কুইজ পদ্ধতি পরীক্ষা-( প্রতিদিন নেওয়া হবে)

২।টেস্ট পরীক্ষা– প্রতি সপ্তাহের শুক্রবার।

৩। ফাইনাল পরীক্ষা-মাসে ১ বার।

প্রশ্নঃ- পরীক্ষা কখন,কোথায় ও কত নাম্বারের হবে?

উত্তরঃ- প্রতিদিন কুইজ পরীক্ষার জন্য ৫০টি এমসিকিউ দেওয়া হবে।রাত ৯ টা থেকে শুরু হবে যার সময় লিমিট হবে ৩০ মিনিট(যেহেতু অনলাইন)। টেস্ট পরীক্ষা নেওয়া হবে কুইজ পরীক্ষায় দেওয়া প্রশ্নের ভিত্তিতে।যেখানে প্রশ্ন থাকবে ১০০টি।যার সময়সীমা থাকবে ৭০মিনিট।আর ফাইনাল পরীক্ষায় প্রশ্ন থাকবে ২০০টি যার সময়সীমা ১২০ মিনিট থাকবে।

প্রশ্নঃ- কারা পরীক্ষায় অংশ গ্রহন করতে পারবে?

উত্তরঃ- কুইজ পরীক্ষায় যেকেউ  অংশগ্রহন করতে পারবে। কিন্তু টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষায় শুধুমাত্র ইউজার আইডি সম্পূর্ণগণ অংশগ্রহন করতে পারবে।

প্রশ্নঃ- আমি কিভাবে ইউজার আইডি সম্পূর্ণ হতে পারি?

উত্তরঃ-প্রতিদিনের কুইজ পরীক্ষায় যেকেউ অংশগ্রহন করতে পারবে কিন্ত টেস্ট এবং ফাইনাল পরীক্ষায় অংশগ্রহন করতে হলে অবশ্যই আপনাকে ইউজার আইডি সম্পূর্ণ হতে হবে। একজন ইউজার তার আইডি ১ মাস পর্যন্ত সচল দেখতে পাবে।অর্থাৎ ইউজার আইডি সম্পূর্ণ হওয়ার পর ১ মাস সেটি সচল থাকবে।

ইউজার আইডি পেতে যা যা করনীয়ঃ-

১।প্রথমে সহজে একটি একাউন্ট খুলতে হবে এতে করে আপনি আমাদের রেজিস্ট্রাডভুক্ত সদস্য হবেন।একাউন্ট করতে এখানে যান।একাউন্ট করতে অসুবিধা হলে আমাদের হেল্পলাইন নাম্বার 01908214716 এ যোগাযোগ করুন।

২।এরপর আপনার বিকাশ পার্সোনাল নাম্বার থেকে আমাদের দেওয়া নাম্বারে ১০০ টাকা সেন্ড করে প্রমাণ স্বরুপ বিকাশের ট্রাংজানশান আইডিটি আমাদেরকে মেইল করতে হবে অথবা এটি ঝামেলা মনে হলে  সেন্ড করার সময় রেফারেন্স এ আপনার নাম্বারটি দিয়ে দিবেন। ৫-১০ মিনিটের মধ্যে আপনার সাথে যোগাযোগ করে আপনার ইউজার আইডি বুজিয়ে দেওয়া হবে।

Bkash personal number- 01879449066

mailhelp@snjobs24.com

(আমরা সহজ পেমেন্ট ব্যবস্থা করেছি। যাতে সবাই সহজে পরীক্ষায় অংশগ্রহন করতে পারে।)

প্রশ্নঃ- পেমেন্ট সিস্টেম কেন রাখা হয়েছে?

উত্তরঃ- কুইজ পরীক্ষায় সবাই অংশগ্রহন করার সুযোগ থাকলেও টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষায় অংশগ্রহন করার সুযোগ একমাত্র তারাই পাবে যারা ইউজার আইডি সম্পূর্ণ। আর ইউজার আইডি পেতে হলে একজন ইউজারকে একটি নির্দিষ্ট পরিমান টাকা পরিশোধ করতে হবে যা যতসামান্য। কারন আমরা টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের পুরষ্কারের ব্যবস্থা করেছি।যারা ইউজার আইডি সম্পূর্ণ হবে না তারা এর আওতায় আসবে না।

প্রশ্নঃ- ইউজার আইডি কতদিন সচল থাকবে?

উত্তরঃ- একজন ইউজার তার আইডি ১ মাস পর্যন্ত সচল দেখতে পাবে।অর্থাৎ ইউজার আইডি সম্পূর্ণ হওয়ার পর ১ মাস সেটি সচল থাকবে।এরপর আবার আপনাকে ইউজার আইডি নিতে হবে। এর কারন ফাইনাল পরীক্ষার পর আবার নতুন করে প্রতিযোগিতা শুরু হবে।অর্থাৎ প্রতি মাসের ১ তারিখ থেকে ন্তুন প্রতিযোগিতার কার্যক্রম শুরু হবে। ইউজার আইডি সম্পূর্ণ করার জন্য আমাদের এডমিন আপনাকে জানিয়ে দিবে তাই টেনশনের কোন কারন নেই।

প্রশ্নঃ- কখন টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষা হবে?

উত্তরঃ- টেস্ট পরীক্ষা নেওয়া হবে- প্রতি সপ্তাহের শুক্রবার অর্থাৎ মাসে ৪ বার টেস্ট  পরীক্ষা নেওয়া হবে।

ফাইনাল পরীক্ষা নেওায়া হবে- মাসে ১ বার অর্থাৎ মাসের ৩০/৩১ তারিখ।

উভয় পরীক্ষা রাত ৯ টায় অনুষ্টিত হবে।

প্রশ্নঃ- পরীক্ষায় কি অংশগ্রহন বাধ্যতামূলক?

উত্তরঃ- কোন পরীক্ষায় অংশগ্রহন বাধ্যতামূলক নয়। তবে যেহেতু টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে পুরষ্কার এর ব্যবস্থা আছে তাই অংশগ্রহন করা জরুরী।

প্রশ্নঃ- পরীক্ষার ফলাফল কখন জানানো হবে?

উত্তরঃ- টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষার ফলাফল পরীক্ষা নেওয়ার ১ ঘন্টার মধ্যে জানিয়ে দেওয়া হবে।

প্রশ্নঃ- পরীক্ষায় মেধাস্থান কিভবে নির্বাচন করা হবে?

উত্তরঃ- পরীক্ষায় মোট পয়েন্ট এর উপর মেধাস্থান নির্বাচন করা হবে। সেই ভিত্তিতে যার পয়েন্ট যত বেশি তার মেধাস্থান তত উপরে থাকবে। আর এই মেধাস্থান থেকে প্রথম তিনজনকে দেওয়া হবে আকর্ষণীয় পুরষ্কার এবং পরের ৭জনকে দেওয়া হবে সান্ত্বনা পুরষ্কার।যদি কারও পয়েন্ট সমান হয়ে যায় সেক্ষেত্রে লটারির মাধ্যমে যে নামটি নির্বাচিত হবে তাকে ১ম এ তালিকাভুক্ত করা হবে এবং পরের স্থানে লটারিতে নাম না উঠা ব্যাক্তিটি স্থান পাবে।এতে বাদ পরার সুযোগ নেই।

প্রশ্নঃ- পুরষ্কার ও সম্মাননা কি থাকবে?

উত্তরঃ-

টেস্ট পরীক্ষার ক্ষেত্রেঃ-

১ম স্থান উত্তীর্ণ পাবে- ৫০০ টাকা

২য় স্থান উত্তীর্ণ পাবে- ৩০০ টাকা

৩য় স্থান উত্তীর্ণ পাবে- ২০০ টাকা

৪র্থ- ১০ম স্থান উত্তীর্ণ পাবে- সান্ত্বনা পুরস্কার।

ফাইনাল পরীক্ষার ক্ষেত্রেঃ-

১ম স্থান উত্তীর্ণ পাবে- ৩০০০ টাকা

২য় স্থান উত্তীর্ণ পাবে- ২০০০ টাকা

৩য় স্থান উত্তীর্ণ পাবে- ১০০০ টাকা

৪র্থ- ১০ম স্থান উত্তীর্ণ পাবে- সান্ত্বনা পুরস্কার।

(প্রাথমিক অবস্থায় আমরা এমনটা রেখেছি।ইনশাল্লাহ আমাদের পুরষ্কার এর পরিমান বাড়বে)

প্রশ্নঃ- পুরস্কার পেতে হলে কি করনীয়?

উত্তরঃ- আমাদের এডমিন কল বা মেসেজের মাধ্যমে আপনাকে পুরস্কারের বিষয়টি নিশ্চিত করে দিবেন।আমাদের এডমিন ফলাফল ঘোষণার ১ঘন্টার মধ্যে আপনার দেওয়া বিকাশ নাম্বারে টাকা সেন্ড করে দিবে যা লিডারবোর্ড এ দেখা যাবে।

এডমিনের কথাঃ-

আমাদের এই আয়োজন এক দিকে যেমন চাকরি প্রত্যাশীদের জন্য খবই হেল্পফুল হবে, অপরদিকে পুরষ্কারের ব্যবস্থাটি কিছুটা হলে আপনাদের সান্ত্বনা যোগাবে। আমাদের এই আয়োজন অব্যাহত থাকবে ইনশাল্লাহ। আপনাদের যেকোনো সমস্যা আপনারা আমাদের উপরে দেওয়া মেইল এ জানাতে পারেন।